ঘরের মধ্যে এক বিশাল বিষধর কোবরা সাপের সাথে তুমুল লড়াই করছে কুকুর, রইলো ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: বর্তমান এই সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে মানুষ বিভিন্ন রকমের ভিডিও দেখে নিজের অবসর সময় কাটিয়ে থাকেন। সেই ভিডিওর তালিকায় পশুপাখি সম্মন্ধে ভিডিও একটি আলাদা জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। আজ আমাদের চর্চার বিষয় এরকমই একটি প্রাণী বিষয়ক ভিডিও। প্রাণীটি আর কেও নয় সকলের গায়ে কাঁটা ধরানো ‛সাপ’।

আসলে ভিডিওটিতে দেখা গিয়েছে যে, একটি মানুষের রান্না ঘরের ঢুকে গিয়েছে বিশাল আকৃতির এক বিষাক্ত কোবরা। তাকে ঘর থেকে বের করতে রীতিমতো হিমশিম খেতে হলো বাড়ির লোকজনকে। তার পরেও তারা তাকে বের করতে সক্ষম হননি। তারপর বাড়ির লোকজন নিরুপায় হয়ে একজন সর্পরক্ষককে সাপটিকে ধরার জন্য ডেকে আনে।

তিনি ঘরে এসেই ভিতরে গিয়ে তন্ন তন্ন করে সাপটিকে খুঁজতে থাকেন। তিনি রান্নাঘরের অবস্থা দেখে বুঝেই গিয়েছিলেন যে এই ঘরে কেউ বা কারা সাপ খোঁজার চেষ্টা চালিয়েছে। না পেয়েই তাকে ডাকা। তারপর লোকটি একটি ফ্রিজের নিচে খুঁজতেই দেখতে পান লুকিয়ে রয়েছে সাপটি। পোক্ত হাতের একটি লাঠির খোঁচা দিতেই নিচে থেকে বেরিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে সাপটি। কিন্তু ওই ব্যক্তি যথেষ্ট সাহসিকতার পরিচয় দিয়ে অসাধারণ কায়দায় সাপটির লেজ ধরে ফেলেন। এ যেন তার কাছে খেলা মাত্র।

তবে বিপদ বাড়িয়ে তৎক্ষণাৎ ঘরের ভেতর হঠাৎ করেই ঢুকে যায় একটি কুকুর। ঘরে থাকা লোকজন আর কুকুরটির চেঁচামেচিতে প্রচন্ড ক্ষিপ্ত হয়ে হঠাৎ করে সাপটি ছোবল মেরে বসে ওই ব্যক্তির পায়ে। কিন্তু ঈশ্বরের কৃপায় তার কোনো ক্ষতি হয়নি কারণ তিনি বুট জুতো পড়েছিলেন।তারপর সমস্ত বিপদ কাটিয়ে ওই ব্যক্তি সাপটিকে ধরে ঘরের থেকে বাইরে নিয়ে আসেন। তারপর সকলকে ওই ব্যক্তি জানান যে, এই সাপ কামড়ালে যেকোনো লোকের মৃত্যু পর্যন্ত ঘটতে পারে।

‛মির্জা মোহাম্মদ আরিফ’ নামক ওই সর্পরক্ষক সম্প্রতি এই সম্পূর্ণ ভিডিওটি নিজের ইউটিউব চ্যানেল থেকে পোস্ট করেছেন। এবং ইতিমধ্যেই তা ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে । প্রায় আড়াই মিলিয়ন ভিউ ১০ হাজার লাইক ইতিমধ্যেই প্রাপ্ত হয়ে গিয়েছে ওই ভিডিওটির।

আরও পড়ুন

Back to top button