মুর্শিদাবাদ সহ এই চার জেলায় টানা তিন দিন চলবে অতি ভারী বৃষ্টি, জানিয়ে দিলো আবহাওয়া দপ্তর!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- সকাল থেকে রোদের দেখা মিললেও দুপুর দিকে হঠাৎ করে ঘনিয়ে আসছে মেঘ । তারপরে নেমে পড়ছে বৃষ্টি । ঠিক একই চিত্র প্রতিদিন দেখা যাচ্ছে গোটা বাংলা জুড়ে । এর কারণ কি? এর কারণ হচ্ছে বর্ষার খামখেয়ালিপনা । যেভাবে বর্ষা এই রাজ্যে প্রবেশ করেছে তারপরেও একটি নিম্নচাপ রীতিমতো বাড়িয়ে তুলছে বর্ষার সক্রিয়তাকে । যার ফলে এই ধরনের ঘটনা দেখা যাচ্ছে প্রতিনিয়ত এবং এখনই রেহাই মিলবে না কারণ পুনরায় নতুনভাবে শুরু হতে চলেছে আরও এক ইনিংস বৃষ্টি।

আমরা জানি যে এবারে পশ্চিমবঙ্গে বর্ষা প্রবেশ করেছিল মূলত বঙ্গোপসাগরের উপর তৈরি হওয়া একটি নি-ম্নচা-পের হাত ধরে । সে নি-ম্নচা-প গ-ভীর নি-ম্নচা-পে পরিণত হয়েছিল । যার ফলে প্রথম দিক থেকে সক্রিয়তা বাড়িয়ে তুলছিল এই বর্ষার । কিন্তু সেই নিম্নচাপ এই মুহূর্তে উত্তর প্রদেশ এবং বিহারের দিকে অবস্থান করলেও এখনো পর্যন্ত কা-টেনি পশ্চিমবঙ্গে তার রে-শ । আগামী ২৪ ঘণ্টায় কলকাতা সহ সংলগ্ন এলাকায় ভারী থেকে অ-তি ভা-রী বৃষ্টিপাতে কথা জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর।

সম্প্রতি আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর দক্ষিণবঙ্গের জেলাগু-লিতে যে বৃষ্টিপাত এ কথা জানিয়েছে উত্তরবঙ্গের জেলাগু-লির ক্ষেত্রে তার থেকে আরো অধিক পরিমাণে বৃষ্টিপাত এর কথা জানিয়েছে । এমনকি কোন কোন জায়গাতে জারি করা হয়েছে কমলা সতর্কবার্তা । রাস্তায় নামতে পারে ধ-স । আর এর চিত্র ফুটে উঠেছে উত্তরবঙ্গের জেলাগু-লিতে ।কালিম্পং জলপাইগুড়ি ইত্যাদি জায়গাতে বৃষ্টিপাত শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই এবং এর প্র-ভাব প-ড়বে দক্ষিণবঙ্গের জেলাগু-লিতে।

আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে দক্ষিণ বঙ্গের জেলা গুলির মধ্যে পূর্ব মেদিনীপুর পশ্চিম মেদিনীপুর হাওড়া হুগলি পূর্ব বর্ধমান বীরভূম বাঁকুড়া পশ্চিম বর্ধমান ইত্যাদি জেলাগু-লিতে অতিবৃষ্টি কথা জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর তার পাশাপাশি থাকবে বি-দ্যুতের ঝ-লকানি। অতিভারী বৃষ্টি হতে পারে, দুই দিনাজপুরে, মালদা, দার্জিলিং,কালিম্পংয়ে। ভারী বৃষ্টির ফলে জলস্তর বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা প্রবল রয়েছে বলে আশংকাপ্রকাশ করা হয়েছে হাওয়া অফিসের তরফ থেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button