Viral: আন্তর্জাতিক বাজারে মূল্য কোটি টাকা, ভারতের এই সাপের দাম এত কেন?

কলকাতা হান্ট ডেস্কঃ সাপ সরীসৃপ প্রজাতির প্রাণী। এদের শীতল রক্ত। সাপের কামড়ে মানুষ সহ যে কোনো জীবের মৃত্যু হতে পারে। তাই সাপ নিয়ে মানুষের আতঙ্কের তো শেষ নেই। কিন্তু সাপের বিষ অনেক উপকারেও লাগে। সাপের বিষ থেকে তৈরি হয় বিভিন্ন মহাষৌধ। সাপের বিষ থেকে এমন অনেক ওষুধ তৈরি হয়, যা শরীরের কঠিন রোগ, জীবানুর বিরুদ্ধে ইমিউনিটি তৈরি করতে পারে। আবার সাপকে নিয়ে ব্যবসাও করা যায়। এক বিশেষ প্রজাতির সাপের আন্তর্জাতিক বাজারে মূল্য কোটি কোটি টাকা ।

আরও খবরঃ- ভাদ্র মাসে দেবাদিদেব মহাদেবের পুজো করুন ১ টাকার কয়েন, সুপারি দিয়ে, সংসারে হবে অর্থবৃষ্টি

স্যান্ড বোয়া নামের একপ্রকার সাপ রয়েছে, যাদের এক একটার দাম এক কোটি টাকা পর্যন্ত উঠতে পারে। সাধারণত পোড়া ইঁটের বর্ণযুক্ত ও দু’মুখো প্রজাতির এই সাপ। তবে এই সাপের অনেক রকম প্রজাতি রয়েছে। তার মধ্য যেসব সাপের গায়ে হালকা হলুদ এবং লালের মিশ্রণ থাকে, সেইসব সাপের মূল্য অনেক বেশি।

এই সাপ সাধারণত পাওয়া যায় উত্তরপ্রদেশের মেরঠের হস্তিনাপুর থেকে গড়মুক্তেশ্বর সংলগ্ন এলাকার মধ্যে। উত্তরপ্রদেশ, বিহার, মধ্যপ্রদেশ এবং হরিয়ানাতেও দেখা মেলে এই সাপের। শান্ত স্বভাবের হওয়ার এই সাপ ধরতেও খুব বেশি বেগ পেতে হয় না।

আরও খবরঃ- ভাতের সঙ্গে খাওয়ার জন্য চাল বাটা ঝিঙের ঘন্ট নিরামিষ রেসিপি

সাধারণত যৌনশক্তি বর্ধক ওষুধ ও বয়স ধরে রাখার ওষুধ তৈরিতে কাজে লাগে এই সাপ। এছাড়াও এই সাপকে সৌভাগ্যের প্রতীক হিসেবে গণ্য করা হয়ে থাকে। এই সাপের চোরাচালান বর্তমানে খুব বৃদ্ধি পেয়েছে। ১৯৭২ সালে ভারত সরকার এই সাপকে ‘সংরক্ষিত প্রাণী’-এর তকমা দিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button