রাজ্যের ৭ জেলায় বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টির পূর্বাভাস, সতর্কতা জারি করল আবহাওয়া দপ্তর

Meteorological department warns of rain with thunderstorm in 6 districts of the state
source Google

কিছুদিন ধরেই দক্ষিণবঙ্গের মানুষরা আদ্রতাজনিত কারণে বেশ অস্বস্তিতে ভুগছে। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর থেকে জানিয়েছে আজ কিছু কিছু জায়গায় বিক্ষিপ্ত বৃষ্টিপাত হলেও স্থায়ীভাবে বৃষ্টির কোন সম্ভাবনা আপাতত নেই এবং এই গুমোট গরম এখনও কিছুদিন থাকবে। বাতাসে আর্দ্রতা প্রচুর পরিমাণে বেশি থাকায় এবং আকাশ মেঘলা করে থাকায় গরম বেড়েই চলেছে।

গতকাল কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল 35.6 ডিগ্রী সেলসিয়াস স্বাভাবিকের থেকে প্রায় তিন ডিগ্রি বেশি

আবহাওয়া দফতর তাদের পূর্বাভাসে বলেছে, দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া এবং বাঁকুড়া জেলায় ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে, মঙ্গলবার থেকে এর তীব্রতা বৃদ্ধি পাবে।

খারাপ আবহাওয়ার জন্য পিছিয়ে গেল মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

আবহাওয়াবিদ জানান, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে সক্রিয় একটি বর্ষা এবং নিম্নচাপের সাথে এই অঞ্চলে ব্যাপক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

রবিবারের খবর সুত্রে, উত্তর বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের অঞ্চল তৈরি হওয়ার কারণে সোমবার থেকে দক্ষিণবঙ্গে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে।

উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে পূর্বের নিম্নচাপ অঞ্চলের কারণে রাজ্যের দক্ষিণের জেলাগুলি গত সপ্তাহে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাতের অভিজ্ঞতা বয়ে চলেছে, যা অব্যাহত বৃষ্টিপাতের ক্ষণিক ক্ষণকাল অবকাশ দিয়ে চলে গেছে।

আবহাওয়া দপ্তর এটাও জানায় যে, ২০ তারিখ নাগাদ বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের শক্তি আরো প্রবল হবে। এর ফলে সমুদ্র প্রচন্ড উত্তাল থাকবে। সেইজন্য ২০ তারিখের আগে যে সমস্ত মৎস্যজীবীরা সমুদ্রে রওনা দিয়েছেন তাদেরকে ফিরে আসার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।