১০ টাকার পুরনো নোট আছে? থাকলে পেতে পারেন ২৫০০০ টাকা, দেখুন বিস্তারিত

কলকাতা হান্ট ডেস্কঃ কথায় বলে “পুরোনো চাল ভাতে বাড়ে”। কিন্তু পুরোনো টাকার বদলে আরোও বেশি টাকা পেতে পারেন আপনি-এটা জানতেন কি? অধিকাংশ মানুষই এই তথ্যটি জানেন না। কিন্তু সত্যিই পুরোনো টাকা বিক্রি করে অনেক টাকা পাওয়া যায়। টাকা আমাদের সবার কাছেই গুরুত্বপূর্ণ সম্পদ। টাকা ছাড়া আজকাল কিছুই হয় না। ভালো করে খেতে, পরতে, চলতে গেলে টাকার দরকার। খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান হলো আমাদের বেসিক চাহিদা। এই চাহিদা পূরণের জন্য টাকার দরকার হয়। তাই টাকা আমাদের কাছে এতো গুরুত্বপূর্ণ। টাকার ওপর সম্মান নির্ভর করে। যার যতো টাকা, এই সমাজে তার ততো মূল্য রয়েছে। টাকার জন্য আত্মবিশ্বাস ফিরে পাওয়া যায়। টাকা হলো সম্পদ আর এই সম্পদ পেতে সবাই চান। যার টাকা নেই, তাকে ছোট চোখে, করুনার চোখে দেখে মানুষ। তবে অনেক সময় টাকার নোট বা কয়েন পুরোনো হয়ে গেলে সেটিকে আমরা বাতিলের খাতায় ফেলে দিই নিমেষে। এই ভুলটি করবেন না একেবারেই। কারণ পুরোনো নোট বিক্রি করে আপনি লাভবান হতে পারেন।

১০ টাকার পুরনো নোট
১০ টাকার পুরনো নোট
লেটেস্ট খবরঃ- মাধ্যমিক পাশে লোয়ার ডিভিশন ক্লার্ক নিয়োগ, আবেদন চলবে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত

পুরোনো জিনিসের যেমন মূল্য রয়েছে তেমন পুরোনো টাকারও মূল্য রয়েছে। অনেকেরই শখ রয়েছে পুরোনো টাকা জমানোর। আবার অনেক সময় অনেক ঐতিহাসিক বা ইতিহাসের সাথে যুক্ত মানুষেরা এইসব পুরোনো টাকা বিভিন্ন রিসার্চের কাজে লাগান। তাই অনেকেই অনেক বেশি মূল্য দিয়ে কিনে নেন পুরোনো টাকার কয়েন বা নোট। একেকটি নোট বিক্রি করলে হাজার হাজার টাকা পাওয়া যায়।

লেটেস্ট খবরঃ- আজকের রাশিফল রবিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১
১০ টাকার পুরনো নোট a
১০ টাকার পুরনো নোট a

একটি বিশেষ ধরনের ভারতীয় ১০ টাকার নোট রয়েছে, যেটি বিক্রি করলে ২৫ হাজার টাকা অব্দি পেতে পারেন। তবে যেকোনো ১০ টাকার নোট বিক্রি করলে এই টাকা পাওয়া যাবে না। একটি বিশেষ ১০ টাকার নোট বিক্রি করে ২৫,০০০ টাকা পেতে পারেন। তবে একটি শর্ত রয়েছে। শর্তটি হলো এই ১০ টাকার নোটটির একপিঠে অবশ্যই থাকতে হবে অশোকস্তম্ভের ছবি এবং অন্যপিঠে নৌকার ছবি। আর বিশেষ শর্ত হলো এই নোটে রিজার্ভ ব্যাংকের প্রথম ভারতীয় গভর্নর সিডি দেশমুখের স্বাক্ষর থাকতে হবে। ‘১০ রুপিজ’ এই কথাটা ইংরেজিতে নোটের পিছনের পিঠের দুই প্রান্তে লেখা থাকতে হবে। এই শর্তগুলো মিলে গেলেও পেয়ে যাবেন ২৫ হাজার টাকা।

লেটেস্ট খবরঃ- ‘দাদাগিরি’র মঞ্চে প্রথমবার সুদীপা-পুত্র আদিদেব, হাসিমুখে দেখলেন বিশেষ উপহার

এই নোটগুলি বিক্রি কিভাবে করবেন সেই নিয়ে ভাবনার দরকার নেই। কয়েনবাজার নামে একটি ওয়েবসাইট রয়েছে। এই ওয়েবসাইটে এই নোটটি বিক্রি করতে পারবেন সহজেই। আপনার কাছে যদি এরকম নোট থাকে এবং আপনি সেটি বিক্রি করতে যদি ইচ্ছুক হন, তবে প্রথমে কয়েনবাজারে একটি অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে। এই ওয়েবসাইটে লগ ইন করে নিজেকে বিক্রেতা হিসেবে রেজিস্টার করুন। এরপর আপনার কাছে থাকা ১০ টাকার নোটটির ছবি তুলে সেই ছবি ওই ওয়েবসাইটে আপলোড করে দিন। কয়েনবাজার আপনার হয়ে ওই নোটের বিজ্ঞাপন দেবে। এই ওয়েবসাইট যার এই নোটটি পছন্দ হবে সে আপনার সাথে যোগাযোগ করে নোটটি কিনে নেবেন।

আরও পড়ুন

Back to top button