superman-sanju-samson-saves-6-while-flying-video
superman-sanju-samson-saves-6-while-flying-video
Advertisement

ভারত নিউজিল্যান্ডের টি-টোয়েটি ম্যাচে সঞ্জু স্যামসন নিজের জ্যালবা দেখালেন তা সুপারম্যান এর চেয়ে কম কিছু নয়। নিজের ফিল্ডিং স্কিল দেখিয়ে মন জয় করেছেন সারা ভারতবাসীর। ফ্যান আবার নাম দিয়েছে ‘সুপারম্যান’ ।

নিজের ফিল্ডিং স্কিল দেখিয়ে চমকে দিয়েছেন বিরাট কোহলি ও টিম ম্যানেজমেন্ট কে। ভারত নিউজিল্যান্ডের ম্যাচে ৮ম ওভারের শেষ বলে নিজের ফ্লাইং স্কিল দেখালেন সঞ্জু স্যামসন।

শারদুল ঠাকুরের বলে নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যান রস টেইলস একটি শট নেন। বলটি মিড উইকেটের উপর দিয়ে বাউন্ডারির বাইরে যেতে দেখা যায়। সেই সময় আমাদের সুপারম্যান উড়ন্ত অবস্থায় বলটিকে ধরেন এবং সজোরে মাঠের মধ্যে ছুড়ে মারেন।

সঞ্জু স্যামসন

ঘটনা টি দেখার পর দর্শক থেকে শুরু করে ক্যাপটেন বিরাট কোহলির চক্ষু চড়কগাছ। টেইলস দৌড়ে দুই রান করলেও। যদি বলটা মাঠের বাইরে চলে যেতো তাহলে নিঃসন্দেহে ৬ রান পেতো নিউজিল্যান্ডের টিম।

ওই ম্যাচে ভারত ২০ ওভারে ১৬৩ রান করে ৩ উইকেটের বিনিময়ে। পরে নিউজিল্যান্ড শুরুটা ভালো করলেও শেষটা ধরে রাখতে পারেনি। ৭ রানে জিতেছে ভারত।

Read More: [Video] উর্বশী vs বিরাট , স্টান্ট এ কড়া টক্কর দিচ্ছেন উর্বশী রাউতেলা বিরাট কে

বিরাট কোহলির অনুপস্থিতির কারণে ম্যাচের অধিনায়ক রোহিত শর্মা সঞ্জু স্যামসনকে ওপেনিং করার সুযোগ দেন। এবং রোহিত শর্মা নিজে ৩ নম্বরে ব্যাট করতে নামেন।

কিন্তু এবারেও সঞ্জু স্যামসন সুযোগের সদ্ব্যবহার করে ব্যাটিং এ নিজের জ্যালবা দেখাতে পারেনি। এবারেও মাত্র ২ রান করে মাঠ ছাড়েন তিনি।

এই ম্যাচটি জিতে টিম ইন্ডিয়া নিজের নাম ইতিহাসে লিখিয়েছে। পাঁচ সিরিজের এই টি-টোয়েন্টি থেকে ৫-০ স্কোরের সাথে ভারত বিজয়ী হয়েছে এই সিরিজের। এবং সেরা প্লেয়ার হয়েছেন কে. এল. রাহুল।