আগামী ৩ বছরে হবে ৩৫ লক্ষ কর্মসংস্থান, বললেন মমতা বন্দোপাধ্যায়

আগামী ৩ বছরে হবে ৩৫ লক্ষ কর্মসংস্থান, বললেন মমতা বন্দোপাধ্যায়
ছবিঃ গুগল

বাংলা খবর ডেস্ক: কোভিড পরিস্থিতিতেও রাজ্যের লক্ষ্য শুধু কর্মসংস্থানের দিকে। প্রশাসনিক বৈঠক এই ব্যাপারে কথা বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতা বন্দোপাধ্যায় ঘোষণা করেছেন যে, আগামী ৩ বছরে ৩৫ বছরের লক্ষ্য কর্মসংস্থান হবে। যার মধ্যে ১৫ লক্ষ হলো ক্ষুদ্র এবং ছোট ও মাঝারি শিল্প অন্যদিকে তথ্য প্রযুক্তির ক্ষেত্রে চাকরি পাবেন ৫ লক্ষ বেকার যুবক। এছাড়া হ্যান্ডলুম এবং অন্যান্য সেক্টরে ১০ লক্ষ কর্মসংস্থানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রীর দাবি করেছেন যে গত ৯ বছরে রাজ্যে মোট ২৯ লক্ষ কর্মসংস্থান হয়েছে। সারা দেশে যখন কাজের জন্য হাহাকার, তখন পশ্চিমবঙ্গে লক্ষ লক্ষ যুবক–যুবতী কাজ পেয়েছেন।

আরও পড়ুন – বদলাতে চলেছে আগামী বছরের মাধ্যমিক পরীক্ষার সময়সূচি। জেনে নিন কবে হতে চলেছে মাধ্যমিক পরীক্ষা।

তিনি এটিও বলেন যে নিউটাউনের 200 একর জমিতে সিলিকন ভ্যালি কাজ খতিয়ে দেখতে যাবেন তিনিও। মুখ্যমন্ত্রীর দেওয়া আগামী ৩ বছরে তথ্যপ্রযুক্তি ক্ষেত্রে ৫ লক্ষ কৃষি বাণিজ্যে ১০ লক্ষ, মৃৎশিল্প প্রকল্পে তিম লক্ষ্য ও হস্তশিল্প দু লক্ষ কাজের ব্যবস্থা হবে। এছাড়া বাকি কাজের ব্যবস্থা হবে ছোট ও মাঝারি শিল্পের মাধ্যমে এবং বাড়বে সরকারি চাকরির সংখ্যা।

আরও পড়ুন – অবস্থার উন্নতি সৌমিত্রর, সাড়া দিচ্ছেন, খুলেছেন চোখ।

তার লক্ষ্য একুশের বিধানসভা নির্বাচন। এজন্যই তাই দুর্গা পুজা মিটতেই তাড়াতাড়ি প্রশাসনিক বৈঠকের ডাক দেওয়া হয় নবান্নের পক্ষ থেকে। স্বনিযুক্তির ক্ষেত্রেও বেশ কয়েকটি প্রকল্পের কথা জানিয়েছেন মমতা বন্দোপাধ্যায়। স্বনির্ভর গোষ্ঠীর এক কোটি সদস্যের তহবিলে পাঁচ হাজার টাকা করে পাঠানো, রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের মাধ্যমে আরও ঋণ দেওয়ার জন্য সরকার সচেষ্ট বলেও তিনি জানিয়েছেন। আধিকারিকদের সতর্ক করার পাশাপাশি বিভিন্ন জেলায় ১০০ দিনের কাজের বিশেষ নজর দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন মমতা। এক্ষেত্রে পিছিয়ে থাকা জেলাগুলির কর্তাদের সেখানকার সাংসদ-বিধায়কদের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে বসতেও বলেছে তিনি।