এক নয় সাত ছেলের মা, বিধায়কের দায়িত্ব সামলে নিজের হাতে জন্মাষ্টমীর ভোগ রাঁধলেন অদিতি মুন্সি

কলকাতা হান্ট ডেস্কঃ  মিষ্টি হাসি আর সুরেলা মিঠে কন্ঠ দিয়ে মোহিত করে রেখেছে যে সকলের মন, তার নাম অদিতি মুন্সী। কীর্তন জগতের এক অতিপরিচিত মুখ অদিতি মুন্সী। ” রূপে লক্ষী আর গুনে সরস্বতী” অদিতি মুন্সীর হাত ধরে কীর্তন গান এক অন্যমাত্রা পেয়েছে। জি বাংলার বিখ্যাত রিয়েলিটি শো সা রে গা মা পা-এর মাধ্যমে তাঁর টেলিভিশন জগতে গান গাওয়ার সূচনা। এই মঞ্চ থেকেই বৃদ্ধি পায় তাঁর জনপ্রিয়তা। এরপর তাঁকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। দেশ, বিদেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে ডাক আসে তাঁর। এখন তিনি কীর্তন জগতের দাপুটে গায়িকা।

আরও খবরঃ- Koel Mallick: মায়ের হাত ধরে ব্যাডমিন্টন শিখতে চায় ছোট্ট কবীর, অন্তরঙ্গ ভিডিও শেয়ার কোয়েলের

তবে অদিতি মুন্সী শুধু একজন গায়িকা নন। তিনি সম্প্রতি তৃনমূলে যোগদান করে রাজারহাট গোপালপুর কেন্দ্রের বিধায়কও। তাই সেইসব কাজও দায়িত্ব সহকারে পালন করতে হয় তাঁকে। তবে অদিতি মুন্সী যে কৃষ্ণভক্ত সেকথা সবাই জানেন। তবে তিনি কিভাবে জন্মাষ্টমী পালন করেন সেটা জানেন কি? এবছরে কেমন করে তিনি জন্মাষ্টমী পালন করেছেন সেটা জানতে চান নিশ্চয়ই সবাই।

আরও খবরঃ- নুসরতের সন্তানের বাবা যশ, খবর প্রকাশ্যে আসতেই চটলেন অনুরাগীরা, অভিনেতাকে বয়কটের ডাক নেটদুনীয়ায়
 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Aditi Munshi (@official_aditimunshi)

তাঁর শ্বশুর বাড়িতে রয়েছে সাতটি গোপাল। অর্থাৎ সাত সাতটি গোপালের মা তিনি। জন্মাষ্টমীর দিন এই সাতটি গোপালকেই দুধ গঙ্গাজলে স্নান করানোর পর নতুন পোশাক পরিয়ে দেন তিনি। এরপর ভোগ দিয়ে গোপাল পুজো করেন। ভোগের মধ্যে ছিল ফ্রায়েড রাইস, পাঁচ রকম ভাজা, লুচি, তরকারি, পোলাও, নাড়ু, তালের বড়া, মালপোয়া, পায়েস, ১২ রকমের মিষ্টি, ক্যাডবেরি। পরের দিন নন্দ উৎসবও পালন করেছেন তিনি। তবে এই সমস্ত কাজ তিনি ও তাঁর শ্বাশুড়ি মা নিজের হাতেই করেছেন। শত ব্যস্ততার মাঝেও তাঁর কৃষ্ণভক্তি বরাবরই অকৃত্রিম। একেই বলে প্রকৃত কৃষ্ণভক্তি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button